পুরাতন সংবাদ

MonTueWedThuFriSatSun
      1
16171819202122
23242526272829
3031     
    123
45678910
11121314151617
18192021222324
252627282930 
       
চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের পাল্টা কমিটি নিয়ে উত্তেজনা

চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের পাল্টা কমিটি নিয়ে উত্তেজনা

চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের বিবাদমান দুই গ্রুপের পাল্টাপাল্টি কমিটি গঠন নিয়ে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এই উত্তেজনা যে কোন সময় সংঘাতে রুপ নিতে পারে এমন আশংকা করছে নেতাকর্মীরা।

 

জানা যায়, দীর্ঘ চারবছর কমিটি বিহীন এই ইউনিটকে সাংগঠনিক পরিবেশে ফিরিয়ে আনতে গত ২০ জুন আব্দুল মান্নানকে সভাপতি ও তোফাজ্জল হোসাইন (তুহিন)কে সাধারণ সম্পাদক করে সাতকানিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি অনুমোদন দেয় চট্রগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এস এম বোরহান ও সাধারণ সম্পাদক আবু তাহের।

 

এই কমিটি ঘোষনার একদিন পরই শফিউল আলম সোহেলকে সভাপতি ও ইয়ামিনুর রহমান ইমনকে সাধারণ সম্পাদক করে আরেকটি কমিটি ঘোষণা করেন উপজেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি মিজানুর রহমান, তাওহীদুল ইসলাম ও যুগ্নসম্পাদক জয়নাল আবেদিন।

 

জেলা সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক এর অজান্তে গঠিত এই কমিটি অবৈধ বলে মন্তব্য করে জেলা -উপজেলা ও কেন্দ্রীয় পর্যায়ের দায়িত্বশীল আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগে নেতারা।
ছাত্রলীগের গঠনতন্ত্রের নিয়ম অনুসারে নিয়মিত ছাত্র হিসেবে দক্ষিণ জেলা সভাপতি -সম্পাদক এসএম বোরহান, আবু তাহের আব্দুল মান্নান -তুহিন পরিষদকে অনুমোদন দেয়, যা সব মহল বৈধ কমিটি হিসেবে অভিবাদন জানায়।

 

ইতোমধ্যে মান্নান -তুহিন কমিটিকে স্বাগত জানিয়ে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ এর সভাপতি মোসলেম উদ্দীন ও সেক্রেটারি মফিজুর রহমান, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ এর উপপ্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম এবং সাতকানিয়া- লোহাগাড়ার সাংসদ প্রফেসর ড. আবু রেজা নেজামুদ্দীন, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ নেতা রুপালী ব্যাংকের পরিচালক সাংবাদিক আবু সুফিয়ান, সাতকানিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এম এ মোতালেব সিআইপি, সাধারণ সম্পাদক কুতুব উদ্দীন চৌধুরীসহ একাধিক সিনিয়র নেতা।

 

পাল্টা কমিটির সভাপতি – সেক্রেটারি দুইজনই বিবাহিত এবং অছাত্র বলে এ কমিটি অযোগ্য ও সংগঠনের শৃংঙ্খলা বিরোধী বলে মন্তব্য করেছেন অনেকে। জানা যায়, পাল্টা কমিটিতে স্থান পাওয়া সকলেই আওয়ামী লীগ এর কেন্দ্রীয় উপপ্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ এর সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমানসহ বেশ কয়েকজন নেতার অনুসারী।

 

তবে আওয়ামী লীগ এর কেন্দ্রীয় উপপ্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম বিষয়টি অস্বীকার করে এই এ প্রতিবেদক কে জানান, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি -সম্পাদক সাক্ষরিত কমিটির ব্যাপারে তার সাথে কোনো কথা বলেনি। তিনি কিছুই জানেন না। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, জেলা যে কমিটি ঘোষণা করেছে তা বৈধ কমিটি। এই কমিটির বাইরে যাওয়ার সুযোগ নেই।

 

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ এর সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান বলেন, দলের শৃঙ্খলা ভেঙ্গে পাল্টা কমিটি হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে দল ব্যবস্থা নিবে। সভাপতি সম্পাদক সাক্ষরিত কমিটি বৈধ কমিটি। এ বিষয়ে জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এসএম বোরহান উদ্দীন বলেন, জেলা ইফতার মাহফিলে উনাকে(আমিনুল ইসলাম)কে জানানো হয়েছিল। ওই সময় ভূমি মন্ত্রী সাইফুজ্জামান জাবেদ উপস্থিত ছিলেন,তিনি ঈদের পরে কমিটি দেওয়ার জন্য বলেছিলেন। পাল্টা কমিটি সম্পুর্ন ভূয়া কমিটি।

 

জানতে চাইলে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ এর প্রচার সম্পাদক ও সাবেক চট্রগ্রাম দক্ষিণ ছাত্রলীগের সভাপতি নুরুল আবছার চৌধুরী বলেন,জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি-সম্পাদক বোরহান-তাহের যেভাবে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ সভাপতি – সম্পাদক সোহাগ জাকির কর্তৃক অনুমোদিত বৈধ কমিটি তদ্রুপ বোরহান -তাহের অনুমোদিত আব্দুল মান্নান -তোফাজ্জল তুহিন বৈধ কমিটি এর বাইরে অন্য কোনো কমিটি বৈধ হতে পারেনা। আমি আহবান জানাচ্ছি পাল্টা কমিটির নেতা কর্মীদের যাতে বিশৃঙ্খলা না করে মুল ধারা কমিটির সাথে একীভূত হয়ে রাজনীতি করতে এবং তাদেরকে যথাযথ মুল্যায়ন করার জন্য মুলধারার কমিটিকে অনুরোধ জানাচ্ছি।
সাতকানিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ন আহবায়ক নাসির উদ্দীন মিন্টু বলেন,জেলা সভাপতি -সম্পাদক যে কমিটি অনুমোদন দিয়েছে তা বৈধ কমিটি। আমি এ কমিটির সভাপতি -সম্পাদক কে অভিনন্দন জানায়।

 

সাবেক যুগ্ন আহবায়ক হারেজ মোহাম্মদ বলেন,জেলা সভাপতি -সেক্রেটারি সাক্ষরিত কমিটি বৈধ কমিটি, এদের বাইরে কেউ কমিটি দিলে তা কখনো বৈধ হতে পারেনা।

এম মহিউদ্দীন চৌধুরী,দক্ষিণ চট্টগ্রাম প্রতিনিধি।।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017 CrimeWatchbd24.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com