মঙ্গলবার, ২০ অগাস্ট ২০১৯, ০৪:১৫ পূর্বাহ্ন




টেকনাফে পৃথক বন্দুকযুদ্ধে নারী সহ ৩ মাদক কারবারী নিহত!

  • ক্রাইম ওয়াচ / অপরাধ অনুসন্ধানে ২৪ ঘণ্টা / আপডেট টাইম : বুধবার, ১৭ জুলাই, ২০১৯
  • খাঁন মাহমুদ আইউব,স্টাফ করেসপন্ডেন্ট।

কক্সবাজারের টেকনাফে পুলিশ ও বিজিবির সাথে পৃথক বন্দুকযুদ্ধে ১ নারী সহ ৩ জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছেন বিজিবির ৩ সদস্য। নিহতরা হলেন টেকনাফ জাদিমুরা এলাকার ছমি উদ্দিনের স্ত্রী হামিদা বেগম (৩২), চাদঁপুর দক্ষিন মতলব থানার চরমুকুদী এলাকার রজায়ান সওদাগরের পুত্র আসমাউল সওদাগর (৩৫) ও যশোর কোতয়ালী থানার বসুদিয়া এলাকার জবার আলীর পুত্র জাবেদ মিয়া (৩৪)।ঘটনা স্থল হতে ১টি বন্দুক, ৩ রাউন্ড কার্তুজ ও ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন ২বিজিবি অধিনায়ক লে. কর্ণেল ফয়সাল হাসান খাঁন।

১৭ জুলাই বুধবার ভোরে উপজেলার জাদিমুরা সংলগ্ন শিকল ঘেরা পাহাড় এলাকায় পুলিশের সাথে মাদক কারবারীদের গোলাগুলির ঘটনায় পুলিশ সদস্যরা আহত হয়। পুলিশও আত্বরক্ষার্থে পাল্টা গুলিবর্ষণের পর ঘটনাস্থল তল্লাশী করে অস্ত্র ইয়াবাসহ ছমি উদ্দিনের স্ত্রী হামিদা বেগম (৩২) কে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে। তাকে হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করে। তবে এঘটনায় কি পরিমান মাদক ও অস্ত্র উদ্ধার হয়েছে সে ব্যাপারে রিপোর্ট লিখা পির্যন্ত কিছুই জানায়নি পুলিশ।

অপরদিকে, মঙ্গলবার (১৬ জুলাই) উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের জাদিমুরা এলাকায় শিকলগাড়া এলাকা দিয়ে ইয়াবার একটি বড় চালান মিয়ানমার হতে বাংলাদশ প্রবেশ করতে পারে এমন গোয়েন্দা সংবাদের ভিত্তিতে দমদমিয়া বিওপির একদল জওয়ান উক্ত এলাকায় অবস্থান নেয়। রাত সাড়ে বারোটা নাগাদ মিয়ানমার হতে কয়েকজন ব্যক্তিকে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে দেখে সিগন্যাল দেয়। এসময় বিজিবি’র উপস্থিতি টের পেয়ে সশস্ত্র ইয়াবা পাচারকারীরা বিজিবিকে গুলুছুঁড়ে। জবাবে জওয়ানরা পালটা গুলি ছূঁড়লে মাদক পাচারকারীরা পিছু হটে। এতে বিজিবি’র নায়েক মাঃ রেজাউল করিম, সিপাহী ইমরান হোসেন এবং সিপাহী মতিয়ার রহমান আহত হয়। পরে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে ঘটনা স্থল তল্লাশী করে ১টি দেশীয় তৈরী বন্দুক,৩ টি কার্তুজ, ১০ হাজার পিস ইয়াবা সহ ২টি গুলিবিদ্ধ দেহ উদ্ধার করে দ্রুত টেকনাফ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরন করে। কক্সবাজার নেয়ার পথে উক্ত ও ব্যক্তি মারা যায়। এদিকে নিহতদের কাছ থেকে উদ্ধারকৃত ছবি ও কার্ড থেকে তাদের পিরিচয় সনাক্ত করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, এই ঘটনায় আইনীপ্রক্রিয়া অব্যাহত রয়েছে। মরদেহ দুটি জেলা মর্গে হস্তান্তর করা হয়েছে।



নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..








© ২০১৯ সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত “ক্রাইম ওয়াচ
Theme Download From ThemesBazar.Com